Wednesday , June 3 2020
সর্বশেষ খবর:

মতামত

মঠবাড়িয়ার মানবিক চিকিৎসক ফেরদৌস ইসলাম – মীর তারেক

প্রবাসী মীর তারেক :  ভয়কে জয় করে চিকিৎসা। ২০২০ সালের করোনা যুদ্ধে আমাদের সম্মুখ যোদ্ধা হলো ডাক্তার শ্রেণি। বৈশ্বিক মহামারি করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের প্রাক্কালে দক্ষিণের জেলা পিরোজপুরের অন্যতম বড় উপজেলা মঠবাড়িয়ায় ১১টি ইউনিয়ন ও ১টি পৌরসভা জনগনের পাশে মানবিক চিকিৎসকদের মধ্যে অন্যতম একজন ৬ নং টিকিকাটা ইউনিয়নের কৃতিসন্তান করোনা যোদ্ধা …

আরও পড়ুন

মুক্তিযুদ্ধ এবং খান সাহেব হাতেম আলী জমাদ্দার (৪র্থ পর্ব) – নূর হোসাইন মোল্লা

নূর হোসাইন মোল্লা :  সাপলেজা ইউনিয়নের একটি গ্রাম। এ গ্রামের মোট জনসংখ্যার প্রায় অর্ধেক হিন্দু। তারা শিক্ষা-দীক্ষায় অগ্রসর ছিলেন। এ গ্রামটি মঠবাড়িয়া সদর থেকে ১২ কিলোমিটার এবং এ লেখকের বাড়ি থেকে মাত্র এক কিলোমিটার দক্ষিণে। ১৯৭১ সালের এপ্রিল মাসে লুটতরাজ শুরু হলে বিভিন্ন স্থানের অনেক হিন্দু এ গ্রামে আশ্রয় গ্রহণ …

আরও পড়ুন

   মুক্তিযুদ্ধ এবং খান সাহেব হাতেম আলী জমাদ্দার (৩য় পর্ব) – নূর হোসাইন মোল্লা

নূর হোসাইন মোল্লা : মঠবাড়িয়া থানার শান্তি কমিটি রাজাকার বাহিনী গঠন করে ১৯৭১ সালের জুন মাসের প্রথম সপ্তাহে। এ বাহিনী গঠনের পূর্বে মুসলিম লীগ এবং জামায়াত ইসলামীর নেতাদের তথা শান্তি কমিটির অধিকাংশ সদস্যের সহায়তায় সংঘটিত ঘটনাবলী সংক্ষেপে আলোচনা করছি। ১৯৭১ সালের ৪ মে হানাদার পাকিস্তানী বাহিনী পিরোজপুর শহর দখল করলে …

আরও পড়ুন

মঠবাড়িয়ার পৌর মেয়র সাহেব সমীপে

মাননীয় পৌর মেয়ার রফিউদ্দিন আহম্মেদ ফেরদৌস ভাই, পতরের শুরুতে আমার শত কুটি সালাম গেরহন করবেন। আশা হরি আমনহে গায় কুশলে আছেন। মোরাও গাও-গেরামের অদম মুরখো নাড়াকাডা খাইড্ড্যা খাওয়া পাবলিকেরা খোদার মেহেরবানিতে কোনো রহম আছি। ম্যালা দিন আগে আমনহারে এ্যাকখান চিডি ল্যাকছালাম, পরছেন কি না জানি না। এ্যাহোন আরো কয়ডা কতা …

আরও পড়ুন

মুক্তিযুদ্ধ এবং খান সাহেব হাতেম আলী জমাদ্দার  (২য় পর্ব) – নূর হোসাইন মোল্লা

নূর হোসাইন মোল্লা : রাজাকার বাহিনী ছিল হিংস্র। তারা পবিত্র কুরাআনের বানী বেমালূুম ভুলে গিয়ে হিন্দু সম্প্রদায় এবং স্বাধীনতাকামীদের বাড়িঘর লুটপাট, অগ্নিসংযোগ, চাঁদাবাজি, প্রতিশোধ, নারী নির্যাতন ও হত্যাসহ মানবতা বিরোধী অপরাধে লিপ্ত ছিল। তাদের মতে, হিন্দু সম্প্রদায় এবং স্বাধীনতাকামীরা পাকিস্তান তথা ইসলামের শত্রু। পবিত্র কুরআন শরীফে পরিস্কারভাবে বর্নিত আছে যে, …

আরও পড়ুন

মুক্তিযুদ্ধ এবং খান সাহেব হাতেম আলী জমাদ্দার – নুর হোসাইন মোল্লা

নূর হোসাইন মোল্লা :  ১৯৭১ সালের ঐতিহাসিক ৭ মার্চ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান স্বাধীনতার ডাক দিয়ে শত্রুর মোকাবেলার জন্যে প্রস্তুত থাকতে নির্দেশ দেন। এ ঘোষনার পর ৪ মে সওগাতুল আলম সগিরের নেতৃত্বে মঠবাড়িয়ায় ১১ সদস্য বিশিষ্ট স্বাধীনতা সংগ্রাম কমিটি গঠিত হয়। সংগ্রাম কমিটির নেতৃত্বে এবং ২৫ মার্চের আগে ছুটিতে আসা …

আরও পড়ুন

জননন্দিত খান সাহেব হাতেম আলী জমাদ্দার (২য় পর্ব)

নূর হোসেইন মোল্লা : পিরোজপুরের মুসলিম লীগ নেতা ও সাবেক মন্ত্রী খান বাহাদুর সৈয়দ মো. আফজাল এর নেতৃত্বে ৭ মে পিরোজপুর মহকুমা শান্তি কমিটি গঠিত হয় (দৈনিক আজাদ ৮ মে, ১৯৭১)। মঠবাড়িয়ার মুসলিম লীগ নেতা এম.এ. জব্বার ইঞ্জিনিয়র ৮ মে খান সাহেব হাতেম আলী জমাদ্দারকে সভাপতি, নিজেকে সিনিয়র সহ সভাপতি, …

আরও পড়ুন

জননন্দিত খান সাহেব হাতেম আলী জমাদ্দার

নূর হোসেইন মোল্লা : খান সাহেব হাতেম আলী জমাদ্দার বলেশ্বর ও বিশখালী নদীর মধ্যবর্তী ভূ-ভাগে জননন্দিত নেতা ছিলেন। তিনি ১৮৭৭ সালে পিরোজপুর জেলার মঠবাড়িয়া উপজেলার উত্তর মিঠাখালী গ্রামে এক সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্ম গ্রহণ করেন। তাঁর পিতার নাম হেলাল উদ্দিন জমাদ্দার এবং  মাতার নাম সহর বানু। তাঁর পিতামহ ফরাজ উল্লাহ জমাদ্দার …

আরও পড়ুন

পিরোজপুর জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মহিউদ্দিন মহারাজ সাহেবের প্রতি

সম্মানীত জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ভাইজান, পতরের শুরুতে আমার শত কুটি সালাম গেরহন করবেন। আশা হরি আমনহে গায় কুশলে আছেন। মোরাও গাও-গেরামের অদম মুরখো নাড়াকাডা পাবলিকেরা খোদার মেহেরবানিতে কোনো রহম আছি। ম্যালা দিন তাইক চিন্তা হরলাম আমনহারে কয়ডা কতা কমু। কিন্তু আমার সোমেস্যার লইগ্যা দেরি অইয়া গ্যাছে। পাবলিকেও মোরে ক্যাল ক্যাল …

আরও পড়ুন

বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর মঠবাড়িয়ার ৩ আওয়ামী লীগ নেতাকে গ্রেফতার করা হয়

মো. সাইদুল হক খান : ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে হত্যার পরে সারা দেশে আওয়ামী লীগের বেশ কিছু নেতাকর্মী তৎকালীন খুনি সরকারের রোষানলে পড়ে গ্রেফতার হন। পিরোজপুরের মঠবাড়িয়াও এর বাইরে নয়। পরিবর্তিত পরিস্থিতিতে করণীয় ঠিক করার জন্য তখনকার মঠবাড়িয়ার আওয়ামী লীগ নেতা শামসুল আলম মোক্তার, …

আরও পড়ুন
error: Content is protected !!