বৃহস্পতিবার , নভেম্বর ২৬ ২০২০
Breaking News

মঠবাড়িয়ায় বিএনপির কাউন্সিল ছাড়া কমিটি গঠনের গুঞ্জনে তৃণমূলে ক্ষোভ

স্টাফ রিপোর্টার : মঠবাড়িয়ার বিএনপি’র দীর্ঘদিন ধরে দ্বিধা বিভক্ত থাকা অবস্থায় কাউন্সিল করার পরিবেশ নেই এমন অজুহাতে এ সপ্তাহেই উপজেলা বিএনপির কমিটি গঠন করার গুঞ্জন ওঠছে। অপরদিকে উপজেলা বিএনপির অভ্যন্তরীণ বিরোধ না মিটিয়ে কাউন্সিল ছাড়া কমিটি গঠন করা হলে তৃণমূল নেতা কর্মীরা প্রত্যাখ্যান করবে বলে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। কাউন্সিল ছাড়া পকেট কমিটি আখ্যা দিয়ে দলের তৃণমূলের ত্যাগী নেতা কর্মীদের মাঝে বিরুপ প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়েছে।
বিএনপির দলীয় সূত্রে জানাগেছে, উপজেলার বিএনপির দুই পক্ষের অভ্যন্তরীণ দীর্ঘদিন চেষ্টা করেও সমন্বয় করতে না পেরে জেলা কমিটি লিখিত ভাবে অপারগতা জানিয়ে বরিশাল বিভাগীয় সাধারণ সম্পাদক এ্যাড. বিলকিস জাহান শিরিনের ওপর কমিটি গঠনের ক্ষমতা হস্তান্তর করেছেন। এমন অবস্থায় আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে জেলা কমিটির সাথে সমন্বয় করে তিনি এ কমিটি ঘোষণা করবেন বলে একটি সূত্র নিশ্চত করেছেন।
উল্লেখ্য, মঠবাড়িয়া উপজেলা বিএনপি দীর্ঘদিন ধরে দুই ভাগে বিভক্ত। বিবদমান দুই পক্ষের দলীয় অফিস আলাদা ও কেন্দ্রের ঘোষিত সকল কর্মসূচি দীঘদিন ধরে দুই পক্ষে পৃথকভাবে পালন করে আসছেন। এতে বিএনপি ও তার অঙ্গ সংগঠনের নেতা কর্মীরা হতাশ হয়ে নিষ্ক্রিয় হয়ে পড়েন। অনেকে মামলা হামলার শিকার হয়ে নানা বিড়ম্বনা ও ভোগান্তিতে দলের নেতা কর্মীরা প্রতি ক্ষুব্দ ও হতাশ। দলের বিরোধ না মিটিয়ে কাউন্সিল ছাড়া কমিটি গঠনকে নতুন করে দলে আরও বিভক্তি ডেকে আনতে পারে এমন আশংকা দলের ত্যাগী নেতা কর্মীদের।
উল্লেখ্য, উপজেলা বিএনপির সভাপতি দিলওয়ার হোসেন মুন্সি ও সাধারণ সম্পাদক রুহুল আমীন দুলালসহ বিরাট একটি অংশ এক পক্ষ। অপর পক্ষে নেতৃত্ব দিচ্ছেন সাবেক কেন্দ্রীয় বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক কর্ণেল (অব.) শাহজাহান মিলন ও পৌর বিএনপির সভাপতি কে.এম হুমায়ুন কবীর। বিবাদমান এ দুই পক্ষের বড় একটি অংশ দলের বর্তমান সাধারণ সম্পাদক রুহুল আমীন দুলালের নেতৃত্বে সম্মেলনের মাধ্যমে কমিটি গঠনের দাবি করে আসছিল। কিন্তু রহস্যের বেড়াজালে আটকে বছরের পর বছর ধরে তৃণমূল নেতাদের কাউন্সিল করার দাবি আমলে না নিয়ে জেলা ও বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক রহস্যজনক ভাবে কমিটি গঠন কার্যক্রম বন্ধ করে রাখেন।
বিএনপির এক পক্ষের নেতা পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক কে.এম হুমায়ূন কবীর কাউন্সিলে কমিটি গঠনের পরিবেশ নাই দাবি করে বলেন, জেলা ও কেন্দ্র সমন্বয় করে কাউন্সিল ছাড়া কমিটি গঠনের এখতিয়ার আছে। তবে যেভাবেই হোক দলীয় কমিটি হলে শতভাগ সমর্থন মেলেনা।
উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক রুহুল আমীন দুলাল জানান, চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়া যুগ্ম মহাসচিব মো. শাহজাহান মিয়াকে কাউন্সিল করার নির্দেশ দিয়েিেছলেন। জেলা বিএনপি কাউন্সিলে তাদের পছন্দের লোক স্থান না পাওয়ার আশংকায় কাউন্সিল দিতে তালবাহানা করছেন। তবে ম্যাডাম জিয়ার নির্দেশ উপেক্ষা করে কমিটি ঘোষণা হলে আমিসহ তৃণমূলের নেতাকর্মীরা তা প্রত্যাখ্যান করব।
পিরোজপুর জেলা বিএনপির সভাপতি গাজী নুরুজ্জামান বাবুল বলেন, কাউন্সিল করার পরিবেশ না থাকায় সমন্বয়ের মাধ্যমে দীর্ঘদিন চেষ্টা করেও কমিটি গঠন করা সম্ভব হয়নি। বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদকের কাছে লিখিতভাবে কমিটি গঠনের জন্য চিটি পাঠানো হয়েছে। হয়তবা চলতি সপ্তাহের মধ্যে কমিটির ব্যাপাওে কেন্দ্রের সিদ্ধান্ত আসবে।
বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক এ্যাডভোকেট বিলকিস জাহান শিরিন বিষয়টি নিশ্চিত করে সাংবাদিকদের বলেন, আমার কমিটি ঘোষণা করার কথা না। করবে সংশ্লিষ্ট জেলা কমিটি। তিনি আরও বলেন, মঠবাড়িয়ায় কাউন্সিল করার পরিবেশ না থাকায় কেন্দ্র সিদ্ধান্ত অনযায়ী আমি মঠবাড়িয়া সফর করে তৃণমূলের ত্যাগী নেতা কর্মীদের মতামত গ্রহণ করেছি। কাউন্সিল ছাড়া কমিটি গঠনের কেন্দ্রের পুরানো সিদ্ধান্ত বহাল রয়েছে। কেননা কেন্দ্র নতুন করে কোন সিদ্ধান্ত দেয়নি।

 

Comments

comments

Check Also

মঠবাড়িয়ায় আসন্ন দুর্গাপূজা উপলক্ষে আইনশৃঙ্খলা সভা

স্টাফ রিপোর্টার : আসন্ন শারদীয় দুর্গা পূজা উপলক্ষে পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় আইন শৃংখলা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। …

মঠবাড়িয়ায় মাথার খুলিবিহীন শিশুর জন্ম

স্টাফ রিপোর্টার : পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় সৌদি প্রবাসী হাসপাতালে মাথার খুলি বিহীন একটি শিশু জন্ম হয়েছে। উপজেলার …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!