শনিবার , সেপ্টেম্বর ১৯ ২০২০
Breaking News

বসত বাড়ির পাশে অবৈধ ইট পাজা : আমের মুকুলসহ ফলদ বাগানের ব্যাপক ক্ষতির আশংকা

স্টাফ রিপোর্টার : পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় গোলবুনিয়া গ্রামে বসত বাড়ির পাশে স্থাপিত একটি অবৈধ ইটের পাঁজায় ইট পোড়ানোর কারনে আম গাছের মুকুল অংকুরেই বিনষ্টসহ ফলদ বাগানের ক্ষতি ও পরিবেশ বিপর্যয়ের আশংকা করছেন স্থানীয়রা। পার্শ্ববর্তী জানখালী গ্রামের সৌদি প্রবাসীর ছেলে কলেজ ছাত্র মো. কাওসার আহমেদ পাঁজার আগুনে বাগান বাড়ীর বনজ গাছ ও পরিবেশ দুষণের আশংকায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার বরাবরে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

লিখিত অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার বেতমোর ইউপির সৌদি প্রবাসী নাসির উদ্দিন গত ৪ বছর আগে উপজেলা কৃষি দপ্তরের পরামর্শে কয়েক হাজার টাকা ব্যয় করে বাড়ীর আঙ্গিনায় একটি আমের বাগান করেন। ওই বাগানের আম গাছে বর্তমানে মুকুল ধরেছে। তার বসত বাড়ীর সংলগ্ন খালের অপর  সীমান্তবর্তী গোলবুনিয়া গ্রামের আবদুল হকের পুত্র কবির হোসেন অবৈধ ভাবে পাঁজায় পোড়ানোর জন্য ইট তৈরী করে। ওই ইটের পাঁজায় আগুন দিলে ধোয়ায় আম গাছের মুকুল ও  বনজ বাগানের ব্যাপক ক্ষতি হবে। আরও জানা যায়, এর আগেও গত ২/৩ বছর আগে ওই ইটের পাজায় অবাধে গাছ পোড়ানোর ফলে ধোয়ার আগ্রাসনে পড়ে তার ফলদ ও বনজ গাছের ক্ষতিসহ পরিবেশের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত ইটের পাঁজার মালিক মো. কবির হোসেনের কাছে ইট পোড়ার বৈধ কাগজপত্র আছে কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, ইউএনও অফিসকে মৌখিক ভাবে জানিয়ে ইট পোড়াই। অভিযোগ সম্পর্কে বলেন, অভিযোগ ভিত্তিহীন। কেননা, অভিযোগকারীর বাড়ী ইট পোড়ানোর স্থান হতে অনেক দুরে। তিনি বলেন গত ৩ বছর আগে ওই প্রবাসী নাসির উদ্দিন আমার কাছ থেকে বাকী টাকায় ইট নেয়। ওই পাওনা টাকা চাইতে গেলে সে আমার বিরুদ্ধে অভিযোগ দিয়ে হয়রানী করছে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জিএম সরফরাজ বলেছেন, লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

 

Comments

comments

Check Also

মঠবাড়িয়ায় নকল কীটনাশক উদ্ধার : গ্রেফতার-১

স্টাফ রিপোর্টার : পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় উপজেলার বড়মাছুয়া বাজারে তিন কার্টুন ১শ ২০ প্যাকেট নকল ভিরতাকো …

পুত্রবধূকে মারধরের ভিডিও ভাইরাল : থানায় মামলা, শ্বাশুড়ী গ্রেফতার

স্টাফ রিপোর্টার : পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় শ^শুর ও শ্বাশুড়ী কতৃক প্রবাসী পুত্রের স্ত্রী তানজিলা বেগম (২৬) …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!