রবিবার , সেপ্টেম্বর ২৭ ২০২০
Breaking News

জাপা চেয়ারম্যান এরশাদ মঙ্গলবার মঠবাড়িয়ায় আসছেন : সমাবেশে আসতে বাধা দেয়ার অভিযোগ

স্টাফ রিপোর্টার : সাবেক রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ দূত হুসাইন মুহাম্মদ এরশাদসহ জাতীয় পার্টির একাধিক মন্ত্রী পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় মঙ্গলবার আগমনের সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। এ উপলক্ষে পিরোজপুর-৩ আসনের স্বতন্ত্র সংসদ সদস্য ও সদ্য জাতীয় পার্টিতে যোগদেয়া কেন্দ্রীয় কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান ডা. রুস্তম আলী ফরাজীর নেতৃত্বে জাতীয় পার্টির নেতা কর্মীরা স্থানীয় শহীদ মোস্তফা খেলার মাঠে সমাবেশকে সফল করার লক্ষে পৌর এলাকাসহ ১১টি ইউনিয়নে ব্যাপক প্রচার প্রচারণা চালিয়ে আসছে। জাপা প্রধান এরশাদের আগমন ও সমাবেশকে কেন্দ্র করে জাতীয় পার্টি ও শহিদ নূর হোসেন স্মৃতি পরিষদ এখন মুখোমুখি। জাতীয় পার্টির জনসভা সফল করতে এলাকায় এলাকায় কর্মীরা ব্যাপক গণসংযোগ চালিয়ে যাচ্ছে। অপর দিকে এরশাদের আগমনের প্রতিবাদে শহিদ নূর হোসেন স্মৃতি সংসদ সামজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইজবুকে, এলাকায় এলাকায় লিফলেট, পোষ্টারিং করছে। এ নিয়ে দু’গ্রুপরে উত্তেজনা দেখা দেয়ার পৌর শহরে র‌্যাব, অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। এরশাদের আগমনকে কেন্দ্র করে বিভিন্ন সড়কে নির্মাণ করা হয়েছে একাধিক তোরণ। সমাবেশকে সফল কারার লক্ষে বিভিন্ন স্থানে কর্মীসভায় শহিদ নূর হোসেন স্মৃতি সংসদের সদস্যরা হামলা ও প্রতিবাদের চেষ্টাও করছে। এ ঘটনায় এমপির সমর্থক জাকির হোসেনকে আহত করে। এ ব্যপারে আ’লীগের ৩৯নেতা কর্মীকে আসামী করে মঠবাড়িয়া থানায় একটি মামলাও করা হয়। এ সমাবেশে উপস্থিত থাকার কথা বিরোধী দলীয় নেতা, কো-চেয়ারম্যান জাতীয় পার্টি রওশন এরশাদ, কো-চেয়ারম্যান জাতীয় পার্টি ও সাবেক মন্ত্রী জিএম কাদের, মহা সচিব জাতীয় পার্টি ও সাবেক মন্ত্রী এবিএম রুহুল আমীন হাওলাদার, প্রেসিডিয়াম সদস্য ও পরিবেশ ও বনমন্ত্রী কাজী  ব্যারিষ্টার আনিসুল ইসলাম মাহামুদ, শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রী মজিবুল হক চুন্নু, বিরোধী দলীয় চিপহুইপ তাজুল ইসলাম চৌধুরী, এসপি, প্রেসিডিয়াম সদস্য ফিরোজ রশিদ, এমপি জিয়া উদ্দিন বাবলু, মশিউর রহমান রাঙ্গা, এ্যাডঃ সালমা ইসলাম, এমপি ও প্রেসিডিয়াম সদস্য অবঃ মেজর খালেদ আক্তার প্রমুখ। সমাবেশে প্রধান বক্তা থাকবেন এমপি ডা. রুস্তম আলী ফরাজী।

অপর দিকে সোমবার সকালে উপজেলা পরিষদে আইশৃঙ্খলা সভায় এমপির সহ-ধর্মণী খাদিজা বেগম খুশবু অভিযোগ করে বলেন, সমাবেশে না আসতে আমড়াগাছিয়া, সাপলেজা ও মিরুখালী ইউনিয়নের জাতীয় পার্টির নেতা কর্মীদের ভয় ভীতি দেখানো হচ্ছে।

মঠবাড়িয়া থানার অফিসার ইনচার্জ কেএম তারিকুল ইসলাম বলেন, জাপার চেয়ারম্যান এরশাদের আগমন ও জনসভা সফল করতে দেড়’শ অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন থাকবে ও ৬টি পুলিশের মোবাইল টিম বিভিন্ন ইউনিয়নে টহল দেবে।

পিরোজপুর-৩ আসনের সাংসদ ডা. রুস্তম আলী ফরাজী অভিযোগ করে বলেন, মিরুখালী ইউপি চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আ’লীগ সভাপতি সোবাহান শরীফ, পুত্র শাহীন শরীফ, দাউদখালী ইউনিয়ন আ’লীগ সভাপতি বজলুর রহমান, আমড়াগাছিয়া সোহাগ শরীফ, তুহিন মল্লিক, ইসমাইল, সাপলেজা সুমন, পলাশ, লিমন, জাহিদুল আমার কর্মী ও লোকজনকে সমাবেশে আসতে বাঁধা দিচ্ছে।

এব্যপারে মিরুখালী ইউপি চেয়ারম্যান আ. সোবাহান শরীফ তার বিরুদ্ধে আনিত অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, আমাদেরকে হেয় প্রতিপন্ন করার জন্য তিনি (এমপি) এ অভিযোগ করেছেন।

 

Comments

comments

Check Also

মঠবাড়িয়ায় ৪৫০ জেলের পরিবারের মাঝে চাল বিতরণ

মঠবাড়িয়া প্রতিনিধি: প্রধানমন্ত্রীর শেখ হাসিনার উপহার হিসেবে পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া সাপলেজা ইউনিয়নের ৪৫০ জেলে পরিবারের মধ্যে …

মঠবাড়িয়ায় মুক্তিযোদ্ধা পরিবারকে মামলা দিয়ে হয়রানির অভিযোগে সংবাদ সম্মেলন

স্টাফ রিপোর্টারঃ পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া মুক্তিযোদ্ধা পরিবারকে মামলা দিয়ে হয়রানির অভিযোগ উঠেছে মালেক সিকদার (৪৮) নামে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!