,

শিরোনাম :

মঠবাড়িয়ায় গৃহবধুর শ্লীলতাহানী ও বৃদ্ধকে মারধর ॥ গ্রেফতার – ১

স্টাফ রিপোটারঃ পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ার পাতাকাটা গ্রামে জমিজমা নিয়ে পূর্ব বিরোধের জেরে গৃহবধুকে মারধর ও শ্লীলতাহানী এবং বৃদ্ধকে মারধরের ঘটনার মামলার প্রধান আসামী সোমেদ হাওলাদার (৫০) কে গ্রেফতার করে আজ বুধবার দুপুরে আদালতে সোপর্দ করেছে থানা পুলিশ। গ্রেফতারকৃত ছোমেদ হাওলাদার উপজেলার ধানীসাফা ইউনিয়নের পাতাকাটা গ্রামের মৃত : সেকান্দার আলী হাওলাদারের ছেলে। 
মামলা সুত্রে জানাজায়, উপজেলার পাতাকাটা গ্রামের সুলতান হাওলাদারের ছেলে নাছির হাওলাদারের প্রতিবেশী ছোমেদ হাওলাদারের সাথে দীর্ঘ দিন যাবত জমিজমা নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। ওই বিরোধের জের ধরে গত ১৯অক্টোবর শনিবার দুপুরে প্রতিপক্ষ ছোমেদ হাওলাদার ভাড়াটিয়া লোকজন নিয়ে বিরোধীয় জমির সুপারী পারতে গেলে নাছিরের বাবা বৃদ্ধ সুলতান হাওলাদার (৭০) ও তার পুত্র বধু নাজমা বেগম (৩০) বাধা দেয়। এ সময় গৃহবধু নাজমা বেগমকে মারধর ও শ্লীলতাহানী করে এবং বৃদ্ধ সুলতান হাওলাদারকে মারধর ও গলায় গামছা দিয়ে স্বাসরোধ করে হত্যার চেষ্টা চালালে তাদের ডাক চিৎকারে প্রতিবেশীরা ছুটে এলে ছোমেদ হাওলাদার তার দলবল নিয়ে পালিয়ে যায়।  পরে স্বজনরা আহতদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেয়। এ ঘটনায় নাছির হাওলাদার বাদি হয়ে ২১ অক্টোবর মঠবাড়িয়া থানায় ৪ জন নামিয় ও ৪ জনকে অজ্ঞাত আসামী করে একটি মামলা করে। 

মঠবাড়িযা থানার ওসি মো. মাসুদুজ্জামান জানান, এ মামলায় এজাহার নামিয় প্রধান আসামীকে গ্রেফতারকরা হযেছে। অন্য আসামীদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

0Shares

Comments

comments